fbpx

ইউনিভার্সিটি রিভিউ – বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ

২০১৩ সালে মেরিন ও মেরিটাইম সংশ্লিষ্ট উচ্চ শিক্ষার জন্য বাংলাদেশে প্রথম এবং একমাত্র বিশেষায়িত সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম ইউনিভার্সিটি, বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠিত হয়। ( তবে এখন আরো কয়েকটি বিশেষায়িত বিশ্ববিদ্যালয় রয়েছে)

Read This Review In ENGLISH

বাংলাদেশের ৩৭তম সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়।এটি বাংলাদেশে প্রথম, দক্ষিণ এশিয়ার দ্বিতীয় এবং বিশ্বের ১২ তম মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়। বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথমবারের মতো স্নাতক (সম্মান) শ্রেণী চালুর অংশ হিসেবে ৩ জানুয়ারি ২০১৭ তারিখে বিশ্ববিদ্যালয়ের মিরপুর পল্লবীস্থ অস্থায়ী ক্যাম্পাসে বিএসসি ইন ওশানোগ্রাফি প্রোগ্রামটি শুরু হয়। এরপর ২০১৮সালে বিএসসি ইন নেভাল আর্কিটেকচার এন্ড অফশোর ইন্জিনিয়ারিং এর প্রথম ব্যাচের ক্লাস শুরু হয়। ২০১৯সালে আরো দুইটি প্রোগ্রামের ক্লাস শুরু হয়। এলএলবি ইন মেরিটাইম ল এবং বিবিএ ইন পোর্ট ম্যানেজমেন্ট এন্ড লজিটিক্স। ২০২০সালে বিএসসি ইন মেরিটাইম ফিশারিজ এর প্রথম ব্যাচের ভর্তি এবং ক্লাস শুরু হয়।

যে যে বিষয়ে পড়ার সুযোগ রয়েছে এবং আসন সংখ্যাঃ

বর্তমানে ৪টি ফ্যাকাল্টির অধীনে ৫টি ডিপার্টমেন্টের একাডেমিক কার্যক্রম চালু রয়েছে। তবে ভবিষ্যতে ৭টি ফ্যাকাল্টির অধীনে ৩৮টি ডিপার্টমেন্ট চালু হবে।

মেরিটাইমের ২০২০-২০২১ সেশনের  প্রশ্ন দেখতে ক্লিক করুন নিচের লিংকেঃ

মেরিটাইম প্রশ্নব্যাংক – (২০২০-২০২১ সেশন)

প্রত্যেকটি ডিপার্টমেন্টে ৪০টি করে আসন রয়েছে।মাস্টার্স পর্যায়েও অনেকগুলো প্রোগ্রামের কার্যক্রম ধারাবাহিকভাবে চলছে।

ক্যাম্পাসঃ

মিরপুর ১২তে (পল্লবী) দুইটি অস্থায়ী ক্যাম্পাসে বর্তমানে একাডেমিক কার্যক্রম পরিচালনা হচ্ছে। হামিদচর,বাকলিয়া,চট্টগ্রামে ইতিমধ্যে স্থায়ী ক্যাম্পাসের কাজ শুরু হয়ে গেছে। মেরিটাইম ক্যাম্পাস হবে বাংলাদেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মাঝে অন্যতম পরিকল্পিত একটি ক্যাম্পাস। কর্ণফুলী নদীর তীরে ১০৬.৬একর জমির উপর নির্মান হবে বিশ্ববিদ্যালয়টির স্থায়ী ক্যাম্পাস।

উপাচার্যঃ
রিয়ার অ্যাডমিরাল এম খালেদ ইকবাল।

আবাসন ব্যবস্থা ও যাতায়াতঃ

শিক্ষার্থীদের থাকার সুবিধার্থে বিশ্ববিদ্যালয়ের অদূরে  মিরপুর ডিওএইচএসে ৩টি আবাসিক হল রয়েছে।

আবাসিক হলগুলোতে সকল ধরনের সুযোগ সুবিধা রয়েছে। মাসিক খরচ আনুমানিক ৫হাজার। খরচ একটু বেশি লাগলেও থাকা খাওয়াতে পরিবেশ, সুবিধার কথা বিবেচনা করলে তা ঠিকই লাগবে।
যাতায়াতের জন্য ঢাকা শহরের বিভিন্ন রুটে ভার্সিটির পর্যাপ্ত পরিমানে বাসের ব্যবস্থা রয়েছে।

খরচঃ

চার বছরে আনুমানিক খরচ হবে দেড় লাখের মতো।
সাইন্সের ডিপার্টমেন্টের আনুমানিক সেমিস্টার ফি ১৭/১৮হাজার। আর বিবিএ এবং এলএলবির ১৪/১৫হাজার।

আনুষঙ্গিক সুবিধাসমূহঃ

উচ্চতর গবেষণার জন্য রয়েছে একটি গবেষণা কেন্দ্র। কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগার, কেন্দ্রীয় মিলনায়তন, স্বাস্থ্য কেন্দ্র, ক্যাফেটেরিয়াসহ সকল ধরনের সুবিধাগুলোই পাবে শিক্ষার্থীরা। এছাড়াও শিক্ষার্থীদের মেধা বিকাশ এবং এক্সট্রা কো-কারিকুলার অ্যাকটিভিটিসের জন্য ৮টি সক্রিয় ক্লাব রয়েছে।

দেশ ও বিদেশের ২০এর অধিক বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে পারস্পরিক সহযোগিতার চুক্তি রয়েছে মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়টির।

মেরিটাইম ভর্তি পরীক্ষার ফ্রি মডেল টেস্ট দিতে ক্লিক করুন BSMRMU Model Test -1

ভর্তি প্রস্তুতিঃ

মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয় পরীক্ষার প্রশ্ন বাইরে নিতে দেয় না। মার্কেটে এর প্রশ্ন ব্যাংক নেই। কিছু থাকতে পারে তবে ওগুলো সঠিক নয়। তবে ভার্সিটিটির এডমিশন হেল্পগ্রুপে আপনি বিগত বছরের ম্যাক্সিমাম প্রশ্নগুলো পাবেন। প্রতি সিটের বিপরীতে এখানে তুলনামূলক অনেক পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। আবার সঠিক প্রস্তুতির জন্য ভর্তি সহায়ক কোনো বইও নেই। সাইন্স ফ্যাকাল্টিগুলোর জন্য অন্যান্য ভার্সিটির মতো প্রিপারেশন নিলেই চলবে। নেভাল আর্কিটেকচারের জন্য ইন্জিনিয়ারিং অন্য ভার্সিটির যেভাবে প্রিপারেশন নিয়েছো ওভাবে নিলেই হবে। আর মেরিটাইম ল এবং পোর্ট ম্যানেজমেন্টের জন্য বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের আইবিএ-র প্রশ্নব্যাংক অনুসরন করবা। এবং আইবিএ-র প্রিপারেশনই নিবা।
মেরিটাইম ভর্তি পরীক্ষার ফ্রি মডেল টেস্ট দিতে ক্লিক করুন BSMRMU Model Test -1

অন্যান্য কিছু তথ্যঃ

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয় সম্পূর্ণ রাজনীতি মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়। শতভাগ র‌্যাগিং মুক্ত ক্যাম্পাস এবং যৌন হয়রানির ব্যাপারে জিরো টলারেন্স। ভার্সিটি অথোরিটি এই জিনিসগুলো খুব শক্তভাবে নিয়ন্ত্রণ করে।
সর্বশেষ তথ্যমতে, একবছরে শিক্ষার্থী প্রতি সর্বোচ্চ টাকা ব্যয় হয় সরকারের এই বিশ্ববিদ্যালয়ে। শিক্ষক-শিক্ষার্থীর অনুপাত এখানে দেশের সর্বোচ্চ। প্রতি ৭জন শিক্ষার্থীর জন্য রয়েছ একজন শিক্ষক।
সবচেয়ে বড় যে কথা তা হলো এই ভার্সিটিতে কোনো সেশনজট নেই।
মেরিটাইম ভর্তি পরীক্ষার ফ্রি মডেল টেস্ট দিতে ক্লিক করুন BSMRMU Model Test -1

বঙ্গবন্ধু মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয় এর ভর্তি বিজ্ঞপ্তি ২০২১-২২ এর গুরুত্বপূর্ণ তারিখসমূহ :

  • অনলাইন আবেদনের সময়সীমা:  ১ এপ্রিল – ২৫ এপ্রিল
  • উপযুক্ত পরীক্ষার্থীদের তালিকা প্রকাশ:  ১০ মে
  • Admit Card উত্তোলন: ১৫ মে – ২৫ মে
  • ভর্তি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ: ২৩ জুন
  • ভর্তি কার্যক্রম: ১৭ জুলাই – ২৫ আগস্ট
  • ক্লাস শুরু: ১১ সেপ্টেম্বর

আবেদনকারীকে নির্ধারিত ওয়েবসাইট applyonline.bsmrmu.edu.bd এর মাধ্যমে আবেদন করতে হবে।

Quick Links for Maritime University

Spread the love

Related Articles

24 Comments

  1. পিংব্যাকঃ Question Bank- BSMRMU - Edu News

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Back to top button
Don`t copy text!